হার মানলেন মারণ ভাইরাসের কাছে! বিদ্যাসাগর বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রাক্তন উপাচার্য, বিশিষ্ট শিক্ষাবিদ আনন্দদেব মুখোপাধ্যায় প্রয়াত

.

দ্য বেঙ্গল পোস্ট প্রতিবেদন, কলকাতা, ৮ অক্টোবর : রাজ্যের বিশিষ্ট শিক্ষাবিদ তথা বিদ্যাসাগর বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রাক্তন উপাচার্য অধ্যাপক আনন্দদেব মুখোপাধ্যায় (Anandadev Mukhopadhyay) হার মাণলেন মারণ ভাইরাস করোনা’র (Covid 19) কাছে! একজন উপাচার্য, সমুদ্রবিজ্ঞানী তথা বিশিষ্ট শিক্ষাবিদের উর্ধ্বে তাঁর সবথেকে বড় পরিচয় হল, রাজ্যের সাক্ষরতা অভিযানের অন্যতম পথপ্রদর্শক। অধ্যাপক মুখোপাধ্যায় কোভিড নাইনটিন আক্রান্ত হয়ে আজ (বৃহস্পতিবার) সকালে, কলকাতার একটি বেসরকারি হাসপাতালে শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেছেন। বয়স হয়েছিল ৮১ বছর!

thebengalpost.in
আনন্দদেব মুখোপাধ্যায় হেরে গেলেন করোনা’র কাছে :

.
.

২০০৩ (১৯৯৯-২০০৩) সালে বিদ্যাসাগর বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য হিসেবে অবসর নেওয়ার পর, জাতীয় শিক্ষা পরিষদের সাধারণ সম্পাদক হয়েছিলেন। বিদ্যাসাগর ফাউন্ডেশনের সভাপতি, বিদ্যাসাগর দ্বিশত জন্মবার্ষিকী উদযাপন কমিটিরও সভাপতি ছিলেন বাম-মনষ্ক এই শিক্ষাবিদ। গত এক সপ্তাহ আগে তাঁর কোভিড ধরা পড়ে। এরপরই, বিপত্নীক আনন্দদেব মুখোপাধ্যায় বেসরকারি হাসপাতালে ভর্তি হওয়ার সিদ্ধান্ত নেন। কিন্তু, সব লড়াই শেষ হয়ে যায় সেখানেই! একমাত্র কন্যা আমেরিকায় থাকেন। তাঁকে খবর দেওয়া হয়েছে। অধ্যাপক মুখোপাধ্যায়ের গ্রামের বাড়ি ছিল পূর্ব বর্ধমান জেলার গলসী থানার করকোনা গ্রামে। তাঁর জীবনাবসানে শোকস্তব্ধ অগণিত শিক্ষানুরাগী ও শিক্ষাবিদ থেকে শুরু করে তার অসংখ্য ছাত্র-ছাত্রীবৃন্দ। তাঁর প্রয়াণে গভীর শোক প্রকাশ করেছেন, বামফ্রন্ট চেয়ারম্যান বিমান বসু, বঙ্গীয় সাক্ষরতা প্রসার সমিতির সাধারণ সম্পাদক অনুপ সরকার, ‘আওয়াজ’ পত্রিকার পক্ষে সাইদুল হক প্রমুখ। পশ্চিমবঙ্গ বিজ্ঞান মঞ্চের পক্ষ থেকেও সংগঠনের অন‍্যতম উপদেষ্টা আনন্দদেব মুখোপাধ্যায়ের জীবনাবসানে শোক জ্ঞাপন করা হয়েছে।

.
.

জেলা থেকে রাজ্য, রাজ্য থেকে দেশ প্রতি মুহূর্তের খবরের আপডেট পেতে লাইক করুন আমাদের ফেসবুক বুক পেজ এবং যুক্ত হোন Whatsapp Group টিতে