গোষ্ঠী সংক্রমণের ধারা অব্যাহত রেখে শহর মেদিনীপুর একাই ১৩৩! জেলাজুড়ে ফের ৫০০ জন আক্রান্ত, মৃত্যু ৫ জনের

দ্য বেঙ্গল পোস্ট প্রতিবেদন, পশ্চিম মেদিনীপুর, ১২ মে: মাঝখানে মাত্র ১ দিন আশার আলো দেখিয়েই ফের দৈনিক ৫০০ সংক্রমণে ফিরে গেল পশ্চিম মেদিনীপুর জেলা! জেলা স্বাস্থ্য দপ্তর সূত্রে প্রাপ্ত তথ্য অনুযায়ী, গত চব্বিশ ঘণ্টায় করোনা সংক্রমিত হয়েছেন ৫০১ (RT-PCR- ২৮৭, Rapid Antigen- ১৭৭, Truenat- ৩৭) জন। গত ৭ দিনে জেলায় মোট আক্রান্তের সংখ্যা হল- ৩৬০৩ (৫৮৮, ৫৭৫, ৫৫৯, ৪৮৩, ৫১৪, ৩৮৩, ৫০১) জন। গত চব্বিশ ঘণ্টায় জেলার করোনা হাসপাতাল গুলিতে মৃত্যু হয়েছে ৫ জনের। শালবনী করোনা হাসপাতালে যে ৩ জনের মৃত্যু হয়েছে, তার মধ্যে কেন্দ্রীয় বাহিনীর আধিকারিককে হাসপাতালে ফিরিয়ে আনার আগেই মৃত্যু হয়েছিল বলে জানানো হাসপাতালের পক্ষ থেকে। অন্যদিকে, ঘাটাল হাসপাতালে মৃত্যু হয়েছে ২ জনের। গত চব্বিশ ঘণ্টায় জেলার হাসপাতালগুলি থেকে সুস্থ হয়ে উঠেছেন ৩৫ জন। এছাড়াও, হোম আইশোলেশন থেকে শতাধিক মানুষ সুস্থ হয়ে উঠেছেন।

thebengalpost.in
মেদিনীপুর শহরে সংক্রমণ বাড়লেও মাস্ক নেই মুখে :

মোবাইলে খবর পেতে জয়েন করুন
Whatsapp Group এ

এদিকে, গত চব্বিশ ঘণ্টায় ফের মেদিনীপুর শহর ও সংলগ্ন এলাকায় শতাধিক মানুষ করোনা আক্রান্ত হয়েছেন। গোষ্ঠী সংক্রমণের ধারা অব্যাহত রেখে জেলা শহর মেদিনীপুর ও সংলগ্ন এলাকায় ১৩৩ জনের রিপোর্ট পজিটিভ এসেছে নতুন করে। আর এর ফলে, গত ৪ দিনে শুধু মেদিনীপুরেই করোনা আক্রান্ত হলেন- ৬৬০ (১৮০, ১৮০, ১৬৭, ১৩৩) জন। গত চব্বিশ ঘণ্টায় মেদিনীপুর পৌরসভার অন্তর্গত বিধাননগর, মির্জাবাজার, পাটনা বাজার, হবিবপুর, রাঙামাটি, আবাস ও কুইকোটা এলাকায় লাগামছাড়া গোষ্ঠী সংক্রমণ দেখা দিয়েছে। এই এলাকাগুলি থেকে ৮ থেকে ১০ জন করে করোনা সংক্রমিত হয়েছেন। বিধাননগরে একটি পরিবারেই সর্বাধিক ৬ জন করোনা সংক্রমিত হয়েছেন। বিধাননগর, মির্জাবাজার, পাটনা বাজার, হবিবপুর, রাঙামাটি আবাস, কুইকোটা ছাড়াও তাঁতিগেড়িয়া, অশোকনগর, ধর্মা, শরৎপল্লী প্রভৃতি এলাকাগুলিতে পরিবার সংক্রমণের হাত ধরে গোষ্ঠী সংক্রমণের ধারা অব্যাহত আছে। গত চব্বিশ ঘণ্টায় খাপ্রেলবাজার, কেরানীটোলা, যমুনাবালী, সিপাইবাজার প্রভৃতি এলাকাতেও করোনা সংক্রমিত হয়েছেন। অন্যদিকে, মেদিনীপুর সদরের শিরোমনি, কালগাং, কঙ্কাবতী, কলমাপোকারিয়া এলাকায় ১ জন করে এবং গোপগড় ও বিদ্যাসাগর বিশ্ববিদ্যালয় এলাকায় ২ জন করে সংক্রমিত হয়েছেন। মেদিনীপুর মেডিক্যাল কলেজ সূত্রে ৫ জনের রিপোর্ট পজিটিভ এসেছে। এছাড়াও, কোতোয়ালী থানার অধীন আরও ৩৬ জনের রিপোর্ট পজিটিভ এসেছে (বিস্তারিত ঠিকানা উল্লিখিত হয়নি)। ঘাটাল মহকুমায় নতুন করে ১০৭ জনের করোনা রিপোর্ট পজিটিভ এসেছে।

thebengalpost.in
শালবনীতে স্বেচ্ছাসেবী সংস্থার উদ্যোগে স্যানিটাইজেশন :

অপরদিকে, খড়্গপুরে ১০৮ জন করোনা সংক্রমিত হয়েছেন গত চব্বিশ ঘণ্টায়। এর মধ্যে গ্রামীণ এলাকায় ১৬ জন, রেল সূত্রে ১১ জন, আইআইটি খড়্গপুর সূত্রে ২০ জন এবং শহর খড়্গপুরের ৬১ জন। শালবনীতে ফের ২০ জনের রিপোর্ট পজিটিভ এসেছে। ভাদুতলা, কুতুরিয়া, খুড়দা, বাদুড়িয়া, গোদাপিয়াশালে ১ জন করে করোনা আক্রান্ত হয়েছেন। শালবনীর একটি বেসরকারি ব্যাঙ্কের ১ কর্মীর রিপোর্ট পজিটিভ এসেছে। এছাড়াও, শালবনী ক্যাম্পের ৪ জন CISF জওয়ান এবং শালবনী সুপার স্পেশালিটি হাসপাতালের ২ জনের রিপোর্ট পজিটিভ এসেছে। শালবনী বাজার এলাকায় ৮ জন করোনা আক্রান্ত হয়েছেন। গড়বেতার তিনটি ব্লক মিলিয়ে ৪৪ (গড়বেতা ৩ নং এর দ্বারিগেড়িয়া ২, কিয়াবনী ২, ডাবচা ৫, চন্দ্রকোনারোড ৪, পানিকোটর, আঁধারনয়ন, বিলা, অপর্ণাপল্লী, ওড়গঞ্জ, বিলা; গড়বেতা ২ নং এর গোয়ালতোড়; গড়বেতা ১ নং এর গড়বেতা ৩, লাপুড়িয়া, সন্ধিপুর, নেপুরা, ধাদিকা, লেদাগামার ২ প্রভৃতি এলাকায়) জন করোনা আক্রান্ত হয়েছেন। অন্যদিকে, কেশিয়াড়িতে ৯ জন, কেশপুরে ৫ জন, বেলদায় (নারায়ণগড়) ১৩ জন, দাঁতনে ৯ জন করোনা সংক্রমিত হয়েছেন গত চব্বিশ ঘণ্টায়। এছাড়াও, পিংলায় ৯ (মালিগ্রাম- ২, পিংলা ২, মহিশঘট, রাজমা, ঘোলুই, একনগেড়িয়া, সামশাপুর ) ছন, সবংয়ে ১৬ (বেনেদীঘি- ৩, চকবাদলপুর- ৪, তেমাথানি, , রেয়াপাড়া, বিষ্ণুপুর, বলরামপুর, জুলকাপুর ২, বুড়াল ২, রোয়াপাড়া ৮ নং) জন এবং ডেবরায় মাত্র ৩ (পদিমা ২, চককুমার) জনের করোনা রিপোর্ট পজিটিভ এসেছে গত চব্বিশ ঘণ্টায়।

thebengalpost.in
মঙ্গলবার পর্যন্ত এক সপ্তাহের সংক্রমণ-গ্রাফ পশ্চিম মেদিনীপুরের :

আরও পড়ুন -   'নেগেটিভ' হয়েও পশ্চিম মেদিনীপুরে মৃত্যু এক কেন্দ্রীয় বাহিনীর আধিকারিকের, মেদিনীপুর শহরের ২৬ বছরের যুবক কোভিডের নির্মম শিকার