এবার শুধু মাস্ক নয়, পশ্চিম মেদিনীপুর জেলা পুলিশের কর্মীরা জামা তৈরি করে বিতরণ করছেন অসহায় বাচ্চাদের, গত দু’দিনে সাত হাজার মানুষের হাতে নতুন পোশাকও তুলে দিল জেলা পুলিশ

.

দ্য বেঙ্গল পোস্ট প্রতিবেদন, পশ্চিম মেদিনীপুর, ২৭ অক্টোবর: পশ্চিম মেদিনীপুর জেলা পুলিশ শুধু মুখেই বলেনা, “মানুষের সাথে মানুষের পাশে”, কাজেও করে দেখায়! অসহায় মানুষজনের কাছে খাদ্য সামগ্রী পৌঁছে দেওয়া কিংবা সচেতনতার উদ্দেশ্যে মাস্ক তুলে দেওয়াই নয়, এবার পুজোর মরশুমে জেলার অসহায় বাচ্চাদের হাতে নতুন জামা কাপড় তুলে দেওয়ার অঙ্গীকারেও আবদ্ধ হয়েছেন তাঁরা। সেটাও আবার, নিজেদের হাতে তৈরি পোশাক! জেলা পুলিশ সূত্রে জানানো হয়েছে, “শুরু হয়েছিল, লকডাউনের সময় থেকে। সেলাই মেশিনে বসে মেদিনীপুর পুলিশ লাইনের কর্মীরা নিজেদের জন্য মাস্ক বানিয়ে ব্যবহার করেছেন। পরে আরও মাস্ক তৈরি হয়েছে এবং বিতরণ হয়েছে সবার জন্য। কাজ কিন্তু থেমে থাকে নি, মাস্ক তৈরির পাশাপাশি উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে ওই মেশিনে বাচ্চাদের জন্য জামা তৈরির। পুজোর মরশুমে অসহায় গরিব বাচ্চাদের জন্য জামা বানিয়ে চলেছেন পুলিশ লাইনের সদস্যরা।” সেই জামাকাপড় ইতিমধ্যে পৌঁছে দেওয়া শুরু হয়েছে, জেলার বিভিন্ন প্রান্তের অসহায় কচিকাঁচাদের কাছে।

thebengalpost.in
মেদিনীপুর পুলিশ লাইনের কর্মীরা তৈরি করছেন নতুন পোশাক :

.
.

অপরদিকে, উৎসবের দিনগুলিতে সকলের মুখেই যাতে আনন্দ থাকে, খুশি থাকে, সেই উদ্যেশ্যেই জেলা পুলিশের অভিনব উদ্যোগ ‘উৎসর্গ’। শুরু হয়েছিল, জেলা সদর মেদিনীপুরে, চতুর্থীর দিন। পশ্চিম মেদিনীপুর জেলা পুলিশের উদ্যোগে এবং কোতোয়ালী থানার সৌজন্যে মেদিনীপুর শহরের অসহায় মানুষদের হাতে নতুন পোশাক তুলে দেওয়া হয়েছিল, ভবঘুরে আবাসনের আবাসিকদের জন্য তুলে দেওয়া হয়েছিল নতুন টিভি। এবার, পশ্চিম মেদিনীপুর জেলার বিভিন্ন থানাতেও একইভাবে “উৎসর্গ” অনুষ্ঠিত হচ্ছে। জেলার বিভিন্ন প্রান্তের অসহায় মানুষগুলির হাতে তুলে দেওয়া হচ্ছে নতুন জামাকাপড়। জেলা পুলিশ জানিয়েছে, “উৎসবের মরশুমে আনন্দ সকলের সাথে ভাগ করে নিতে জেলার বিভিন্ন থানা এলাকায় আয়োজন করা হয়েছিল বস্ত্র উপহার দেওয়ার কর্মসূচি। গত দু’দিনে জেলার বিভিন্ন থানা এলাকার ৭০৩৩ জন মানুষকে জামা কাপড়, মাস্ক, স্যানিটাইজার উপহার হিসাবে তুলে দিল পশ্চিম মেদিনীপুর জেলা পুলিশ।”

thebengalpost.in
পশ্চিম মেদিনীপুর জেলা পুলিশের উৎসর্গ :

.
.

জেলা থেকে রাজ্য, রাজ্য থেকে দেশ প্রতি মুহূর্তের খবরের আপডেট পেতে লাইক করুন আমাদের ফেসবুক বুক পেজ এবং যুক্ত হোন Whatsapp Group টিতে