মুখ্যমন্ত্রীর সঙ্গে বৈঠকের আগেই ইস্তফা দিলেন জিতেন্দ্র তিওয়ারি, একই পথের পথিক অনেকে

thebengalpost.in
জিতেন্দ্র তিওয়ারি :
বিজ্ঞাপন

দ্য বেঙ্গল পোস্ট প্রতিবেদন, আসানসোল, ১৭ ডিসেম্বর: আগামীকালই মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় তাঁর সাথে বৈঠকে বসতে চেয়েছিলেন। তার আগে “মাথা ঠাণ্ডা” রাখার পরামর্শও দিয়েছিলেন! তবে, বৈঠক হওয়ার আগের দিনই, আজ (১৭ ডিসেম্বর) আসানসোল পৌরসভার পৌর প্রশাসক (পৌর প্রশাসক মণ্ডলীর চেয়ারম্যান) পদ থেকে ইস্তফা দেওয়ার কথা ঘোষণা করে দিলেন, পাণ্ডবেশ্বরের বিধায়ক জিতেন্দ্র তিওয়ারি। তবে, এখনও তিনি বিধায়ক পদ ছাড়েননি! একইসাথে তিনি ছিলেন পশ্চিম বর্ধমানের জেলা সভাপতি। সেই পদও ছাড়েননি। তবে, ধাপে ধাপে যে, শুভেন্দু অধিকারী’র পথেই তিনি এগোতে চলেছেন তা বলাই বাহুল্য!

thebengalpost.in
জিতেন্দ্র তিওয়ারি :

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

আজ সকালেও নিজের সিদ্ধান্তের কথা পরিষ্কার করেননি জিতেন্দ্র তিওয়ারি। তিনি জানিয়েছিলেন, মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সঙ্গে বৈঠকের পর সিদ্ধান্ত নেবেন! তবে, আজ দুপুরে, পুরসভার কর্মচারীদের সঙ্গে বৈঠকের সময়ে তিনি এই সিদ্ধান্তের কথা ঘোষণা করেন। এ নিয়ে রাজ্য রাজনীতিতে তীব্র জল্পনা শুরু হয়েছে। তবে, কি ১৯ শে ডিসেম্বর শুভেন্দু অধিকারী’র সঙ্গে তিনিও অমিত শাহের সভায় যোগদান করতে চলেছেন! হয়তো আজ-কালের মধ্যেই তা পরিষ্কার হয়ে যাবে। এদিকে, কর্ণেল দীপ্তাংশু চৌধুরী সহ রাজ্যের একাধিক ছোটো বড়ো তৃণমূল নেতাদের মধ্যে নিজেদের পদ ছেড়ে দেওয়ার হিড়িক পড়ে গিয়েছে! দীপ্তাংশু চৌধুরী এসবিএসটিসি ‘র চেয়ারম্যানের পদ ছেড়ে দিতে চেয়ে মুখ্যমন্ত্রী’কে চিঠি দিয়েছেন। আসানসোল পৌরসভার একাধিক কাউন্সিলর, পূর্ব ও পশ্চিম মেদিনীপুরের একাধিক নেতৃবৃন্দও নিজেদের দলীয় পদ ছেড়ে দিয়েছেন।

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

বিজ্ঞাপন

জেলা থেকে রাজ্য, রাজ্য থেকে দেশ প্রতি মুহূর্তের খবরের আপডেট পেতে লাইক করুন আমাদের ফেসবুক বুক পেজ এবং যুক্ত হোন Whatsapp Group টিতে