আর্টিফিসিয়াল ইন্টেলিজেন্স এর ফলে মানুষ হয়ে পড়বে বাড়ির পোষ্যের মতো! চাঞ্চল্যকর দাবি ইলন মাস্কের

Advertisement

বিশেষ প্রতিবেদন, সুদীপ্তা ঘোষ, ২৯ জুলাই : আর্টিফিশিয়াল ইন্টেলিজেন্সে কে কতটা উন্নত তা নিয়ে প্রথম থেকেই প্রতিযোগিতায় নেমেছে বিশ্বের উন্নত দেশগুলি। প্রযুক্তি বিজ্ঞানের দিক থেকে এই দেশ গুলিতে ব্যাপক হারে বেড়ে চলেছে আর্টিফিশিয়াল ইন্টেলিজেন্স বা কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তার ব্যবহার। স্বভাবতই ভারতে ও তার ছাপ পড়েছে অল্পস্বল্প। ডিজিটাল প্রযুক্তিতে আর্টিফিশিয়াল ইন্টেলিজেন্স ছাড়া কাজ করা প্রায় অসম্ভব। এর ফলে ভবিষ্যতে মানবতার অস্তিত্ব সঙ্কটে পড়তে পারে বলেও দাবি করেন টেসলা এবং স্পেস-এক্স এর সিইও ইলন মাস্ক।

Advertisement
দ্য বেঙ্গল পোস্ট
ইলন মাস্ক :

সম্প্রতি একটি সাক্ষাৎকারে ইলন মাস্ক দাবি করেন আগামী পাঁচ বছরে অর্থাৎ ২০২৫ সালের মধ্যে গোটা বিশ্বে আরো উন্নত হবে কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তা আর্টিফিশিয়াল ইন্টেলিজেন্স এর প্রয়োগ। ফলে মানুষের ব্রেনের থেকেও আরো বেশি স্মার্ট হবে আর্টিফিশিয়াল ইন্টেলিজেন্স। মানুষের বুদ্ধিমত্তা কেও ছাড়িয়ে যাবে এই কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তা। ইলন এই প্রসঙ্গে একাধিক আশঙ্কার কথা উল্লেখ করেছেন। তিনি এই প্রসঙ্গে বলতে গিয়ে বলেন যে, “আমরা এমন এক সময়ের দিকে এগিয়ে চলে যাচ্ছি যেখানে মানুষের চেয়ে এ আই অনেক বেশি স্মার্ট। আমি মনে করি যে পাঁচ বছরেরও কম সময়ে এই ক্ষেত্রে একটা বড়সড় পরিবর্তন আসতে চলেছে। এবং এর ফলে মানবতার অস্তিত্ব সংকটে পড়তে পারে।” ২০১৬ সাল থেকেই একাধিকবার তিনি সাক্ষাৎকারে বলেছেন এমন সময়ও আসতে পারে, যখন মানুষের মাথাও কম্পিউটারের সঙ্গে যুক্ত করা সম্ভব হবে। যার ফলে সেই সময় মাস্টার কম্পিউটার, মানুষকে বাড়িতে থাকা কোন গৃহপালিত পশুর মত আচরণ করাতেও বাধ্য করতে পারবে। সুতরাং এই বিষয়ে মানুষকে সদা সতর্ক থাকার পরামর্শ দিয়েছেন তিনি।

দ্য বেঙ্গল পোস্ট
আর্টিফিশিয়াল ইন্টেলিজেন্স রোবট :