পরপর দু’দিন দুই কিশোরীর আত্মহত্যা দাসপুর এবং ঘাটালে, তদন্তে নামল পুলিশ

Advertisement

নিজস্ব প্রতিবেদন, ঘাটাল, ২৯ জুন : পরপর দুই কিশোরীর আত্মহত্যায় চাঞ্চল্য ছড়ালো দাসপুর এবং ঘাটালে। প্রথম ঘটনাটি ঘটে দাসপুর থানার বিষ্ণুপুর গ্রামে। স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে যে, বছর পনেরোর কিশোরী সুপ্রিয়া পোড়ে গত শুক্রবার তার মায়ের সঙ্গে কাঠ কুড়োতে গেলে সেখানেই শেখ সহিদুল নামের এক ব্যক্তি তার শ্লীলতাহানি করে। শুধু তাই নয়, এই লজ্জাজনক ঘটনার পরে থানায় অভিযোগ না করে তার বাড়িতে একটি সালিশিসভার আয়োজন করা হয়, যেখানে সম্পূর্ণ ভাবে মানসিক বিধ্বস্ত হয়ে পড়ে ওই কিশোরী। পরিবার সূত্রে জানা যাচ্ছে যে, এর পরেই হয়তো সে আত্মহত্যার পথ বেছে নেয়। গতকাল, দাসপুর থানার সামনে দোষীর উপযুক্ত শাস্তির দাবিতে গ্রামবাসীরা বিক্ষোভ দেখায়।

দ্য বেঙ্গল পোস্ট
কেন আত্নঘাতী হল পূজা, তদন্তে পুলিশ (ছবি- সংগৃহীত) :

এদিকে, ঘাটাল থানার নকুড় বাজারেও এক নবম শ্রেণির ছাত্রী রবিবার আত্মহত্যা করে। পূজা দাস নামের ওই কিশোরী সিংহডাঙ্গা দিনময়ী উচ্চ বিদ্যালয়ের ছাত্রী ছিলো। জানা গিয়েছে যে, ঘাটাল সংলগ্ন বরদা এলাকার একটি ছেলের সাথে তার প্রেম ছিলো। দু বাড়ির পক্ষ থেকে তাদের সেই সম্পর্ক স্বীকারও করে নেওয়া হয় কিন্ত হঠাৎই রবিবার সকালে বাঁশবাগানে গলায় ফাঁস লাগিয়ে নেয় সে। সেই অবস্থায় দেখতে পেয়ে তৎক্ষণাৎ বাড়ির লোকেরা তাকে ঘাটাল মহকুমা হাসপাতালে নিয়ে এলেও শেষ পর্যন্ত মৃত্যু হয় তার। হাসপাতালে ভর্তির সময় দেখা যায় যে তার সিঁথিতে সিঁদুর ছিলো তাই এই আত্মহত্যার পেছনে প্রেমঘটিত বিবাদ আছে বলেই মনে করছে পুলিশ।

Advertisement