শিক্ষার্থীদের স্বাস্থ্য ও সুরক্ষা’র কথা ভেবে মুসুর ডাল ও স্যানিটাইজার, সংক্রমণ রুখতে এক সপ্তাহ ধরে চলবে বিতরণ

Advertisement

মণিরাজ ঘোষ, মেদিনীপুর, ২৭ জুন : এবারই প্রথম শিশু শিক্ষার্থীদের হাতে তুলে দেওয়া হবে স্যানিটাইজার (৫০ এম.এল)। শিক্ষার্থীদের পুষ্টির কথা ভেবে মুসুর ডাল দেওয়া হচ্ছে ২৫০ গ্রাম করে। সঙ্গে, চাল ও আলু ২ কেজি করে। গত ১৭ জুন রাজ্য সরকার এই বিষয়ে বিজ্ঞপ্তি প্রকাশের পরই, গতকাল (২৬ জুন) এই বিষয়ে পশ্চিম মেদিনীপুর জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে নির্দেশিকা জারি করা হয়েছে। জুলাই মাসের ৬ তারিখ (সোমবার) থেকে ১১ তারিখ (শনিবার) পর্যন্ত এই এই সমস্ত সামগ্রী বিতরণ করা হবে জেলার প্রাথমিক বিদ্যালয় ও শিশু শিক্ষা কেন্দ্রগুলোতে। পশ্চিম মেদিনীপুর জেলার পঞ্চায়েত ও শিক্ষা দফতরের ভারপ্রাপ্ত অতিরিক্ত জেলা শাসক স্বাক্ষরিত এই নির্দেশিকা গতকাল প্রকাশিত হয়েছে।

দ্য বেঙ্গল পোস্ট
জুলাই মাসে শুরু হচ্ছে মিড-ডে মিলের সামগ্রী বিতরণ :

উল্লেখ্য যে, বিদ্যালয়গুলিতে যাতে একসাথে অনেক মানুষের জমায়েত না হয় বা নির্দিষ্ট দূরত্ব বজায় থাকে, সেজন্যই এক সপ্তাহ ধরে চলবে এই বিতরণ পর্ব। বর্তমান করোনা পরিস্থিতিতে, এই প্রথম শিশু শিক্ষার্থীদের স্বাস্থ্য ও সুরক্ষার উপর জোর দিয়ে স্যানিটাইজার ও মুসুর ডাল দেওয়া হচ্ছে। বাজারের সঙ্গে সঙ্গতি রেখে, এর মূল্যও বেঁধে দিয়েছে রাজ্য সরকার। একটি ৫০ মিলি স্যানিটাইজারের বোতল কিনতে হবে ২২ টাকা দিয়ে এবং ২৫০ গ্রাম মুসুর ডাল কিনতে হবে ২৩ টাকা দিয়ে। আলু কেনার কথা বলা হয়েছে ২২ টাকা প্রতি কেজি দরে।
দ্য বেঙ্গল পোস্ট
জেলা প্রশাসনের বিজ্ঞপ্তি :

Advertisement