দূর-দূরান্ত থেকে ক্লান্তিবিহীন পথে হেঁটে চলা পরিযায়ীদের প্রতি সহমর্মিতার হাত বাড়িয়ে দিল ‘দিশারী ফাউন্ডেশন’

দ্য বেঙ্গল পোস্ট

প্রেম ও সৌভ্রাতৃত্বের পরিচয় দিয়ে, ক্লান্তিবিহীন পথে হেঁটে চলা, পরিযায়ী শ্রমিক বন্ধুদের প্রতি সহমর্মিতার হাত বাড়িয়ে দিল, মেদিনীপুরের অন্যতম স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন, ‘দিশারী ফাউন্ডেশন’। ভিন রাজ্য কিংবা ভিন জেলা থেকে যাঁরা শুধুমাত্র ঘরে ফেরার বাসনাটুকু বুকে নিয়ে, ক্ষুধার্ত-তৃষ্ণার্ত-রিক্ত ও নিঃস্ব অবস্থায় হেঁটে কিংবা বড়জোর একটা সাইকেল জোগাড় করে নিজেদের গন্তব্যের দিকে এগিয়ে চলেছেন, সমাজ গড়ার কারিগর সেই শ্রমিক বন্ধুদের পাশে দাঁড়িয়ে, তাঁদের মুখে একটু খাবার আর হাতে সামান্য পাথেয় তুলে দিলেন, দিশারী’র সদস্যরা। সুদীর্ঘ পথযাত্রার অসহনীয় কষ্ট, সামান্য কিছু সময়ের জন্য লাঘব করার উদ্দেশ্যে কিংবা তাঁদের একটু বিশ্রাম নেওয়ার বার্তা দিয়ে, শুক্রবার একশো জন শ্রমিক বন্ধুর হাতে তুলে দেওয়া হল, কেক, বিস্কুট এবং পানীয় জলের বোতল। সঙ্গে দেওয়া হল, প্রত্যককে পঞ্চাশ টাকা করে।

‘দিশারী ফাউন্ডেশন’ এর পক্ষ থেকে, সেখ ইসমাইল বললেন, “মেদিনীপুর ও খড়্গপুরের সংযোগস্থলে চৌরঙ্গী’র মোড় দিয়ে যে সকল ভিন-জেলা কিংবা ভিন-রাজ্য থেকে আগত শ্রমিকরা নিজেদের ঘরে ফিরছেন; তাঁদের পাশে দাঁড়ানোর আন্তরিক প্রচেষ্টা করেছে টিম দিশারী। আর এই প্রচেষ্টা যাঁর অবদানে সফল হয়েছে, সে হল আমাদের প্রিয় সদস্য ও ছোট ভাই স্বপ্নিল রায় (রিক)।”