বাজার থেকে উধাও আলু! পশ্চিম মেদিনীপুরে আলুর বদলে কচু, ওল কিনে নিয়ে গেলেন ক্রেতারা

.

দ্য বেঙ্গল পোস্ট প্রতিবেদন, খড়্গপুর, ৩১ অক্টোবর: লক্ষ্মী পুজোর পরের দিন বাজারে গিয়ে ক্রেতারা দেখলেন, আলু নেই! সব সবজিই আছে যথারীতি। ৮০ টাকা কেজি পেঁয়াজও আছে, তবে আলু নেই। ঘটনা, পশ্চিম মেদিনীপুর জেলার খড়্গপুর শহরের। পুলিশি জেরায় ভয়ে, আলু বিক্রি বন্ধ রাখলেন খড়্গপুর শহরের ইন্দা বাজারের আলুর খুচরো ব্যবসায়ীরা। আলু বেশী দামে বিক্রি করা নিয়ে, শুক্রবার ইন্দা বাজারের ব্যবসায়ীদের পুলিশ জিজ্ঞাসাবাদ করে। চড়া দামে আলু বিক্রি করছেন, তাই উপযুক্ত রসিদ দেখাতে বলেন! দেখাতে পারেননি খুচরো ব্যবসায়ীরা। শনিবার ব্যবসায়ীরা বললেন, তারা পাইকারদের কাছ থেকে আলু কিনে অল্প মার্জিন রেখে বিক্রি করেন। কিন্তু, পাইকাররা আলুর রসিদ দিচ্ছেন না! তাই, যতদন না রসিদ দিচ্ছেন পাইকাররা, ততদিন আর আলুই বিক্রি করবেন না বলে স্থির করেছেন তাঁরা। এদিকে, শনিবার বাজারে আলু না পেয়ে অসুবিধায় পড়লেন সাধারণ মানুষ।

thebengalpost.in
বাজারে নেই আলু !

.
.

প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, মেদিনীপুর, খড়্গপুর সহ বিভিন্ন বাজারেই আলু-পেঁয়াজ চড়া দামে বিক্রি হচ্ছে! যে যা খুশি দাম নিচ্ছে (আলু ৩৫ থেকে ৪০ টাকা প্রতি কেজি, পেঁয়াজ ৭০ থেকে ৮০ টাকা প্রতি কেজি) বলে সাধারণ মানুষের অভিযোগ। অভিযোগ পেয়ে, খড়্গপুর টাউন থানার পুলিশ শুক্রবার বাজারে অভিযান চালায় এবং ব্যবসায়ীদের সতর্ক করে দিয়ে বলে, সঠিক রসিদ বা চালান দেখাতে হবে। শনিবার অরুণ সিং নামে এক খুচরো ব্যবসায়ী বলেন, “পাইকারি বাজারে রসিদ দেয়নি, তাই আজকে দোকান বন্ধ রেখেছি। পুলিশ বলে দিয়েছে, রসিদ না দেখাতে পারলে, অন্য সবজি বিক্রি করুন, আলু বিক্রি করার দরকার নেই! আগামীকাল থেকে রসিদ পেলে আবার আলু বিক্রি করব।” এদিকে, শনিবার বাজারে আলু না পেয়ে, ক্রেতারা বিরক্ত হলেন, মুখ বেজার করে বাড়ি ফিরে গেলেন। আবার কেউ কেউ, আলুর বদলে কচু, ওল কিনলেন! তবে, মনে মনে পুলিশের এই উদ্যোগ কে বাহবাও দিলেন!

thebengalpost.in
খুচরো ব্যবসায়ীরা দোষ দিলেন পাইকারী ব্যবসায়ীদের :

.
.

জেলা থেকে রাজ্য, রাজ্য থেকে দেশ প্রতি মুহূর্তের খবরের আপডেট পেতে লাইক করুন আমাদের ফেসবুক বুক পেজ এবং যুক্ত হোন Whatsapp Group টিতে